• শুক্রবার, ০৭ অক্টোবর ২০২২, ০৩:০৪ পূর্বাহ্ন
171764904_843966756543169_3638091190458102178_n

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে দৌঁড়ে পালালেন মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূত

/ ৪৬ বার পঠিত
আপডেট: রবিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০২২
মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূত

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় থেকে দৌঁড়ে বের হলেন মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূত অং কিউ মোয়ে। এসময় সাংবাদিকদের সাথেও কথা বলেননি তিনি। মন্ত্রণালয় থেকে বেরিয়ে সোজা গাড়িতে ওঠেন মোয়ে।

রোববার (১৮ সেপ্টেম্বর) বেলা ১১টায় মন্ত্রণালয়ে ডেকে বান্দরবান সীমান্তে মর্টার শেল নিক্ষেপে একজন নিহতের ঘটনায় কড়া প্রতিবাদ জানানো হয় মোয়েকে। প্রতিবাদ জানানো শেষে রাষ্ট্রদূত মোয়ে ও তার দূতাবাসের কর্মকর্তারা ঝড়ো বেগে মন্ত্রণালয় থেকে বের হন। এসময় সাংবাদিকরা কথা বলতে চাইলেও ভ্রুক্ষেপ করেননি তারা।
উল্লেখ্য, এর আগেও তিন বার একই কারণে মন্ত্রণালয়ে তলব করা হয় তাকে। সে সময়ে এমন ঘটনা আর ঘটবে না বলে আশ্বস্ত করেন মিয়ানমার রাষ্ট্রদূত। এ নিয়ে এক মাসের মধ্যে চতুর্থবারের মতো মিয়ানমারের দূতকে প্রতিবাদ জানালো পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

গত শুক্রবার রাতে মিয়ানমারের পাহাড় থেকে ছোড়া মর্টারের একাধিক গোলা রাখাইনের ওয়ালিডং পাহাড়ের পাদদেশের শূন্যরেখার রোহিঙ্গা আশ্রয়শিবিরে এসে পড়ে। এতে মো. ইকবাল নামের এক কিশোর মারা যায়। আহত হন পাঁচজন। একই দিন বেলা তিনটার দিকে তুমব্রু সীমান্তের বিপরীতে শূন্যরেখার ৩৫ নম্বর পিলারের কাছাকাছি জায়গায় গরু আনতে গেলে স্থলমাইন বিস্ফোরণে অথোয়াইং তঞ্চঙ্গ্যা (২২) নামের বাংলাদেশি এক তরুণের বাঁ পায়ের গোড়ালি উড়ে যায়।

এর আগে ৯ সেপ্টেম্বর মিয়ানমার থেকে ছোড়া একটি গোলা তুমব্রু বাজারের পাশে কোনারপাড়ার কৃষক শাহজাহানের বাড়ির আঙিনায় এসে পড়ে। বাড়ির পাশেই শূন্যরেখায় রোহিঙ্গা আশ্রয়শিবির। এর আগেও বাংলাদেশের ভূখণ্ডে মিয়ানমারের হেলিকপ্টার থেকে ছোড়া দুটি গোলা এসে পড়েছিল। এসব ঘটনায় মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূতকে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে তলব করে কড়া প্রতিবাদ জানিয়েছিল ঢাকা।


আরো পড়ুন