• সোমবার, ২৯ নভেম্বর ২০২১, ০৪:৫০ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
ত্রিশালে ইউপি নির্বাচনে নৌকার ৭, বিদ্রোহী ৩ ও স্বতন্ত্র ২ প্রার্থী বিজয়ী ভোট দিয়ে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন এক বৃদ্ধা হোয়াইক্যং ইউপির স্থগিত নির্বাচন নিয়ে জনমনে শংকা।প্রশাসনের প্রতি চেয়ারম্যান আনোয়ারীর আবেদন চট্টগ্রামের কুলগাঁও কলেজে ইচ্ছা’র ৭ম বর্ষপূর্তি উদযাপন রাত পোহালেই মানিকগঞ্জ সদর উপজেলার ১০ ইউপিতে ভোট গ্রহণ আজ তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন লক্ষ্মীপুরে প্রার্থীদের জনপ্রিয়তার হার-জিত খেলা বেনাপোল সাদিপুর ওয়ার্ড যুবলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্টিত বিএমএসএফ থেকে সরে দাঁড়ালেন জাফর টেকনাফ পৌরসভা নির্বাচনে এমপি বদির হুমকি সুষ্ঠু নির্বাচন নিয়ে সন্দিহান  সাতক্ষীরায় গৃহবধূকে ধর্ষণের পর ছুরিকাঘাত

শাজাহান খান বললেন ইলিয়াস কাঞ্চন কত বড় ‘বেকুব’ হলে…

অনলাইন ডেস্ক / ৯০৬ Time View
Update : শুক্রবার, ৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১

নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা)-এর প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান চিত্রনায়ক ইলিয়াস কাঞ্চনকে ‘বেকুব’  বললেন বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি শাজাহান খান (এমপি)।

সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮ নিয়ে কথা বলতে গিয়ে তিনি বলেন,  ‘ইলিয়াস কাঞ্চন একজন বিজ্ঞ বিশেষজ্ঞ। উনি বলেন, এই আইনের যদি সংশোধন হয়, তাহলে বাংলাদেশ হেরে যাবে। কত বড় বেকুব হলে এ কথা বলতে পারেন, আমি আশ্চর্য হয়ে যাই।

আজ সন্ধ্যায় রাজশাহীতে ফেডারেশনের বিভাগীয় সম্মেলনে শাজাহান খান এ কথা বলেন। নগরের নওদাপাড়ায় অবস্থিত রাজশাহী কেন্দ্রীয় বাস টার্মিনালে সম্মেলনটি অনুষ্ঠিত হয়।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশে কিছু বুদ্ধিজীবী আছেন, যে বুদ্ধিজীবীরা পরিবহনশ্রমিকদের দেখতে পারেন না। তারা মনে করেন যে পরিবহনশ্রমিকদের ফাঁসি দিলেই বোধ হয় দুর্ঘটনা সব বন্ধ হয়ে যাবে। বাংলাদেশে যারা এটা বলেন, তারা হাস্যকর কথা বলেন। পৃথিবীতে বহু দেশেই তো হত্যা যাঁরা করেন, ফাঁসির আইন আছে না? তার জন্য কি খুন বন্ধ হয়ে গেছে?

শাজাহান খান বলেন, ‘সড়ক পরিবহন আইনটি একটা প্রেক্ষাপটে তাড়াহুড়া করে পাস করতে হয়েছিল। ঢাকায় একজন ছাত্র এবং একজন ছাত্রী গাড়িচাপায় যে মারা গেল, মহাখালীতে; তারপরের পরিস্থিতি আপনাদের জানা আছে। বাংলাদেশের বিভিন্ন স্থানে ছাত্রছাত্রীরা তখন আন্দোলন করছিল।

তিনি বলেন, ‘যুগোপযোগী আইন করার জন্য ফেডারেশনের পক্ষ থেকে আমরাই কিন্তু দাবি তুলেছিলাম। এরশাদ সাহেবের শাসনামল থেকে আমরা বলে এসেছি যুগোপযোগী আইন করতে হবে। তারপর অনেক সরকার পার করলাম। শেখ হাসিনার সরকারে এসে আমরা সেই আইন পাস করাতে পেরেছি। এর মধ্যে সংশোধনীগুলো আমরা দিয়েছি সরকারের কাছে। আমরা আমাদের যৌক্তিক দাবিগুলো তুলে ধরেছি। তিন মন্ত্রী এই কমিটির সদস্য ছিলেন, সচিব ছিলেন কয়েকজন। তাঁরা সবাই কিন্তু আমাদের দাবির যেসব দিক যৌক্তিক, সেগুলো গ্রহণ করছেন। আশা করছি, আগামী সংসদ অধিবেশনে বা বাজেট অধিবেশনে সংশোধনীগুলো পাস হবে।’

ফেডারেশনের রাজশাহী বিভাগীয় আঞ্চলিক কমিটির সভাপতি আবদুল লতিফ মণ্ডল-এর সভাপতিত্বে সম্মেলনে প্রধান বক্তা ছিলেন বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক ওসমান আলী। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটন, বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন ফেডারেশনের যুগ্ম সম্পাদক শিমুল বিশ্বাস ও জয়পুরহাট জেলা মোটর শ্রমিক ইউনিয়নের সাধারণ সম্পাদক রফিকুল ইসলাম।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category