স্বরূপকাঠীতে পূর্ব শত্রুতার জেরে সহকারি শিক্ষিকার বাসায় ডাকাতি আটক এক!

0
24

রিপোটার সুমন খান:-
পিরোজপুর নেছারাবাদ স্বরূপকাঠীতে ৫৪নং ঝালকাঠি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষীকা রোজিনা খানম (৪৮) স্বামী মৃত আলতাফ হোসেন। বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটি নিয়ে সাথে বিবাদীদের বিরোধ সৃষ্টি হয়। উক্ত বিরোধকে কেন্দ্র করিয়া প্রায় সময়ই বিবাদীরা বিভিন্ন ধরনের ভয়ভীতি ও হুমকি দিত। ঘটনার রোজিনা বলেন আমার বোন তার বসত ঘরের সামনে দাঁড়াইয়া কথা বলার সময় পূর্ব শত্রুতার আক্রোশে দরজা খোলা থাকায় বিবাদীরা অনাধিকার প্রবেশ করিয়া এবং গভীর রাতে তার বাসায় বসে তাহাকে হত্যার উদ্দেশ্য তাহাকে তাহারা শরীরে ও মাথায় আঘাত করে এবং তাহার নিকট থেকে আলমারির চাবি নিয়ে বাসায় লুটপাট চালায়। যখন তারা বুঝতে পারে যে রোজিনা খানম তাদেরকে চিনে ফেলে তখন তারা বেপরোয়া হয়ে তাহার উপর এলোপাথাড়ি পিটিয়ে তারা আলমারিতে রাখা সোনার গহনা ও নগদ টাকা নিয়ে পালিয়ে যায়। রোজিনা খানমের ডাক চিৎকারে বাসার আশেপাশের লোকজন খবর পেয়ে তাহাকে অজ্ঞান ও হাত পা বাধা অবস্থায় পরে থাকতে দেখে।

পরের দিন তার প্রতিবেশিরা তাহাকে নেছারাবাদ থানা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নিয়ে আাসে এবং তাহার বাবা ভাইদের খবর দিলে তারা এসে তাহাকে হাসপাতালে মহিলা ওয়ার্ডের ২৭নং বেডে ভর্তি করে। বর্তমানে রোজিনা খানম ডাক্তার ফিরোজ কিবরিয়া এর তত্বাবধানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন। বারবার তিনি মুর্ছা গেলে তাহাকে আধুনিক চিকিৎসা দেয়া হয়। তাহারা বক্তব্য নিতে গেলে তিনি বলেন ১। মোস্তফা(৪৫) পিতা মৃত মুজাহার ২। মিজান শেখ(৩৫) পিতা আঃ মজিদ শেখ ৩। সোহাগ(২৮) ৪। সুমন(২৬) উভয় পিতা আঃ বেলায়েত তারা একই গ্রামের বাসিন্দা। এ ঘটনায় রোজিনা খানমের ভাই আসাদুজ্জামান বাদী হয়ে নেছারাবাদ থানায় রাত আনুমানিক ১.৩০ মিঃ এর সময় মামলা দায়ের করেন এবং মাদ্রা বাজার থেকে বিবাদী মিজানকে গ্রেফতার করা হয়। মামলা নং ০৫/১২৪

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here