• মঙ্গলবার, ৩১ জানুয়ারী ২০২৩, ১০:৪৫ অপরাহ্ন




চিকিৎসকের গোপন ভিডিও ভাইরালের ভয় দেখিয়ে টাকা দাবি

/ ৪৪ বার পঠিত
আপডেট: বুধবার, ৭ ডিসেম্বর, ২০২২

গোপন ভিডিও ভাইরালের হুমকি দিয়ে এক চিকিৎসকের কাছে মোটা অঙ্কের টাকা দাবি করার অভিযোগে দুইজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গ্রেপ্তাররা হলেন, ওই চিকিৎসকের সাবেক স্ত্রী মারিয়া ইসলাম নিকিতার বান্ধবী তমালিকা আক্তার ও তার প্রেমিক আবু সাঈদ রনি।

ভুক্তভোগী চিকিৎসক পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগের (সিআইডি) সাইবার পুলিশ সেন্টারের ফেসবুক পেজে অভিযোগ করার পর সোমবার (৫ ডিসেম্বর) রাজধানীর কাফরুল থেকে তমালিকাকে এবং রনিকে চট্টগ্রামের খুলশী এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। তাদের কাছ থেকে জব্দ করা দুটি মোবাইলে আপত্তিকর ছবি ও ভিডিও পাওয়া গেছে।

সিআইডির গণমাধ্যম শাখার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আজাদ রহমান জানান, ওই চিকিৎসকের অভিযোগ পেয়ে জড়িতদের শনাক্ত করে অভিযান চালানো হয়। পরে আসামিদের জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, ভুক্তভোগী চিকিৎসকের সাবেক স্ত্রী মারিয়া ইসলাম নিকিতার বান্ধবী তমালিকা। তারা দু’জনই বিভিন্ন ব্যক্তির সঙ্গে টাকার বিনিময়ে ইমো ও ফেসবুক মেসেঞ্জারে ভিডিওকলের মাধ্যমে ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক গড়ে আপত্তিকর মুহূর্ত ধারণ করে রাখেন। নিকিতা ভুক্তভোগী চিকিৎসকের গোপন ভিডিও ধারণ করে ভয় দেখিয়ে তাকে বিয়েতে বাধ্য করেন।

এক পর্যায়ে তাদের বিচ্ছেদ হয়ে গেলে ওই ভিডিও তমালিকাকে সরবরাহ করেন নিকিতা। তমালিকা আবার চট্টগ্রামে তার প্রেমিক আবু সাঈদ রনিকে এগুলো পাঠায়। রনি ভিডিওটি চিকিৎসক ও তার বর্তমান স্ত্রীর টেলিগ্রাম এবং ফেসবুক ম্যাসেঞ্জারে পাঠিয়ে অর্থ দাবি করে। এভাবে তারা ঢাকা ও চট্টগ্রামে অনেককে ব্ল্যাকমেইল করে বিপুল অর্থ হাতিয়ে নিয়েছে।

এ ঘটনায় রাজধানীর কলাবাগান থানায় মঙ্গলবার মামলা দায়ের হয়েছে। এ ধরনের প্রতারণা থেকে রক্ষা পেতে সচেতন হওয়ার পাশাপাশি এমন ঘটনার শিকার হলে সিআইডিকে জানানোর অনুরোধ করা হয়েছে।





আরো পড়ুন