• রবিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:৪৫ পূর্বাহ্ন

সুনামগঞ্জের ধর্মপাশায় কৃষকের উপর হামলার প্রতিবাদে মানববন্ধন। 

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি / ১২২ Time View
Update : মঙ্গলবার, ২ ফেব্রুয়ারি, ২০২১

সুনামগঞ্জ ধর্মপাশা উপজেলাধীন মধ্যনগর থানার দুলানানিয়া মৌজার এস,এ,১নং খাস খতিয়ানের এস,এ,৪১৯ নং দাগের ১০্২৫ একর লায়েক পতিত বর্তমানে ডোবা, খাল,গোচর ও মাড়াই খলা রকম ভৃমির মালিক সরকার তথা জেলা প্রশাসক। উক্ত ভূমিতে দীর্ঘ একশত বছর তথা তামাদি মুদ্দতের উর্ধকাল যাবত প্রথাগত অধিকারে স্হানীয় আশ পাশ গ্রামের হাজার দেড় হাজার লোক ও তাদের পরিবারের লোকজনের দৈনিন্দন গিরস্থালি কাজে তথা গোসল করা কাপড় কাচা হাড়িবাসন ধোয়াসহ গরু মহিষ ছাগল, ভেড়ার গোচরন ভৃমি এবং স্হানীয় হাওরের হাজার হাজার একর বোরো ফসল মাড়াই এর খলা হিসাবে ব্যবহার করিয়া আসিতেছে।

ইদানিং একই গ্রাম নিবাসী আলিনুর মাষ্টার কিছু সন্রাসী লোকজন নিয়া নালিশা ভৃমিতে কোন ধরনের গিরস্থালি কাজ না করার জন্য বাঁধা নিষেধ দিতে থাকিলে গ্রাম বাসির পক্ষেে সিরাজ মিয়া উক্ত মৌজার আর,এস ৯০ খতিয়ানের  আর এস ৮৫৭ নং দাগে ১০,০০ একর লায়েক রকম ভৃমি তাদের নামে অবৈধ ও যোগাযোগী মৃলে রেকর্ড হওয়ার কথা এলাকায় প্রচারিত হইলে এলাকার মানুষজন এ অবৈধ রেকর্ড বালিতের  জন্য প্রতিবাদ বা মানববন্ধন করিলে আলিনুর গং উত্তেজিত হইয়া প্রতিবাদ কারীদের উপর হামলা করেন।
এলাকাবাসীর কয়েকজন সিরাজ মিয়াসহ ৩/৪ জন আহত হন। এ বিষয়টি বহু পত্র পত্রিকায় প্রকাশিত হওয়ার পরও ধর্মপাশা উপজেলা প্রশাসান আইনি কোন পদক্ষেপ গ্রহণ না করায় আলিনুর মাষ্টার গংরা আর ও বেশিভাবে মারমুখী হইয়া বাঁধানিষেধ করিয়া এলাকাবাসীকে তাদের প্রথাগত অধিকার হতে বনচিত করিয়া  আসিতেছে। নালিশা ভৃমিতে যেকোন মহুর্তে আইনশৃঙ্খলা অবনতিসহ দাংগা হাঙ্গামা হওয়ার সমূহ সম্ভাবনা বিদ্যমান তাই জরুরি বিত্ততে জেলা প্রশাসনকে এলাকাবাসীর প্রথাগত অধিকার রক্ষায় এ বিষয়ে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য এলাকাবাসীর জোরদাবী জানাচ্ছেন।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category