• বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২২, ১১:৫৪ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
যে ভেরিয়েন্টাইনই আসুক না কেন স্বাস্থবিধি মেনে চলার বিকল্প নেই: ডাঃ আয়েশা আক্তার শিল্পী। এসব আস্ফালন আমাকে মোটেও বিচলিত করে না, সাঈদুর রহমান রিমন ফুলের রাজ্যে গদখালীতে ফুল চাষী ও ব্যবসায়ীদের প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত নবাবগঞ্জে ভ্রাম্যমাণ আদালতে মাদক সেবনের দায়ে যুবকের কারাদন্ড গাইবান্ধায় বিদ্রোহী দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীসহ আ. লীগ থেকে চার নেতা বহিষ্কার ঠাকুরগাঁওয়ে এতিম শিশুদের পাশে শীতবস্ত্র নিয়ে জেলা প্রশাসক নওগাঁয় -সরকারি অনুদিত সিনেমা ‘বিলডাকিনি’ এ জুটি বেধেছে মোশাররফ করিম ও ভারতের-পার্ণো মিত্র শিগগিরই বাসায় নেওয়া হতে পারে খালেদা জিয়াকে! আন্দোলন মোকাবিলা করতেই বিধি-নিষেধ: গয়েশ্বর চন্দ্র রায় বগুড়া জেলা ছাত্রলীগ কমিটি বিলুপ্ত

ঢাকা-১৮ আসনে নির্বাচন করতে চান ভিপি নূর

Reporter Name / ১৭৬ Time View
Update : বুধবার, ২৬ আগস্ট, ২০২০

সরকারি চাকরিতে কোটা সংস্কার আন্দোলনের মধ্য দিয়ে পরিচিতি লাভ করে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ। দীর্ঘ আন্দোলন, নির্যাতন, সরকারের দাবি মেনে নেওয়ার মধ্য দিয়ে তরুণ প্রজন্মের কাছে সংগঠনটিকে ঘিরে একটা আগ্রহ লক্ষ্য করা যায়।

পজিটিভ ইমেজকে কাজে লাগিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচনে ভিপি ও সমাজসেবা সম্পাদক পদে জয় লাভ করে সংগঠনটির প্যানেল থেকে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করা প্রার্থীরা। পরবর্তীতে সংগঠনটির নাম পরিবর্তন, সমসাময়িক শিক্ষার্থীবান্ধব ও জনগুরুত্বপূর্ণ বিভিন্ন ইস্যুতে সক্রিয় ভূমিকা অব্যাহত রাখে তারা।

এবার বড় পরিসরে কাজ করতে দেশের জাতীয় রাজনীতিতে আত্মপ্রকাশ করার জন্য কাজ করছে সংগঠনটির নেতাকর্মীরা। এরই মধ্যে ঢাকা-১৮ আসনে উপ-নির্বাচনে লড়াতে প্রাথমিক সিদ্ধান্ত নিয়েছে তারা। দুই মাসের মধ্যে অন্যান্য সংগঠনের কার্যক্রম গুছিয়ে এনে নতুন রাজনৈতিক দল গঠন করার পরিকল্পনা সামনে রেখে নিজেদের প্রস্তুত করছেন ছাত্র অধিকার পরিষদ সংশ্লিষ্টরা।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে ছাত্র অধিকার পরিষদের আহ্বায়ক হাসান আল মামুন বাংলানিউজকে বলেন, আমরা সংগঠনকে গোছানোর কাজ করছি। আমাদের সঙ্গে যারা কাজ করতে চান তাদের সঙ্গে কথা বলছি। অগ্রাধিকার ভিত্তিতে দেশের প্রতিটি জেলায় ছাত্র অধিকার পরিষদের কমিটি গঠনের কাজ চলছে। ইতোমধ্যে আমরা বেশ কয়েকটি জেলায় কমিটি ঘোষণা করেছি।

রাজনৈতিক দল গঠন প্রসঙ্গে এ ছাত্রনেতা বলেন, আমরা আমাদের সমমনা সংগঠনগুলোর কমিটি, নীতিমালা পূর্ণাঙ্গ করতে চাই। ছাত্র অধিকার পরিষদ, যুব অধিকার পরিষদ, প্রবাসী অধিকার পরিষদ, পেশাজীবী অধিকার পরিষদের গঠন, পূর্ণাঙ্গকরণের কাজ চলমান রয়েছে। আমরা আশা করছি দুই মাসের মধ্যে এসব কাজ শেষ করতে পারবো। তারপর সবাই মিলে রাজনৈতিক দল গঠনের সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করবো।

ঢাকা-১৮ আসনের উপ-নির্বাচনে ডাকসুর সাবেক ভিপি নুরুল হক নূরের প্রার্থী হওয়া নিয়ে জানতে চাইলে মামুন বলেন, এ বিষয়টি নিয়ে সংগঠনের মধ্যে আলোচনা হয়েছে। প্রাথমিকভাবে আমরা সিদ্ধান্ত নিয়েছি নির্বাচন করার। তবে এটি চূড়ান্ত নয়। কারণ জাতীয় নির্বাচনে অংশগ্রহণ, রাজনৈতিক দল গঠন কিংবা স্বতন্ত্রভাবে অংশগ্রহণ সব কিছুর জন্য প্রস্তুতির বিষয় রয়েছে। আমরা আলোচনা করে সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত করবো।

এদিকে নিজের প্রার্থিতার বিষয়ে নুরুল হক নূর বাংলানিউজকে বলেন, আমরা সম্প্রীতির রাজনীতি প্রতিষ্ঠা করতে চাই। আমরা তরুণদের প্রাধান্য দিয়ে একটা রাজনৈতিক দল গঠন করার ঘোষণা দিয়েছি। আমরা যেহেতু রাজনৈতিক দল হিসেবে আত্মপ্রকাশ করতে চাচ্ছি সেকারণে ঢাকার দু’টি উপ-নির্বাচনে আমাদের অবস্থানটা যাছাই করার সুযোগ আছে।

তিনি বলেন, আমাদের মধ্যে ইতিবাচক আলোচনা হচ্ছে। যদিও তা চূড়ান্ত না। অনেকেই আশা প্রকাশ করছেন আমি যেন প্রার্থী হই। যেহেতু আমি উত্তরাতে পড়াশুনা করেছি। পাশাপাশি ঢাকা-৫ এ যেন আমাদের সংগঠন থেকে প্রার্থী দেই। যদিও আমরা নির্বাচনে অংশ নেই সেটি আমরা স্বতন্ত্রভাবে করবো।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category