• বৃহস্পতিবার, ২৯ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০২:৩৪ পূর্বাহ্ন

হামলার ঘটনার ভিডিও ভাইরাল করতে গিয়ে ফেঁসে গেছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী, আটক ০৫

/ ৬০ বার পঠিত
আপডেট: শনিবার, ২৫ নভেম্বর, ২০২৩

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
কুমিল্লায় মনোনয়নপত্র কিনতে এসে হামলার শিকার হওয়া এক স্বতন্ত্র প্রার্থীর ভিডিও ভাইরাল হয় হয়েছে। হামলার শিকার ওই প্রার্থী জেলা নির্বাচন কর্মকর্তার নিকট অভিযোগ জমা দায়ের করেন। পরে এ ঘটনায় তদন্ত শেষে আজ শনিবার বিকেল ০৪.১০ মিনিটের সময় কুমিল্লা পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে প্রেস ব্রিফিং করেন পুলিশ সুপার জনাব আব্দুল মান্নান বিপিএম (বার) জানায় পরিকল্পিতভাবে নির্বাচনের পরিবেশ বিশৃঙ্খল করতে মনোনয়ন প্রার্থীকে মারধরের ঘটনা সাজানোর অভিযোগে পাঁচজনকে আটক করেছে কুমিল্লা জেলা পোয়েন্দা পুলিশ।

শুক্রবার রাত থেকে কুমিল্লা নগরের বিভিন্ন এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে ডিবি পুলিশ তাদেরকে আটক করেন। আটকৃত হল কুমিল্লা নগরের ছোটরা মফিজাবাদ কলোনী এলাকার মোঃ সুমন, মোঃ সবির, মোঃ সবুজ, ইকবাল হোসেন, মাসুদ রানা। এর আগে গতকাল শুক্রবার কুমিল্লা জেলা সিনিয়র নির্বাচন কর্মকর্তার কার্যালয় থেকে মনোনয়ন পত্র নিয়ে ফেরার পথে দুর্বৃত্তদের হামলার শিকার হয় গোলাম সারোয়ার নামে এক ব্যক্তি। তাকে মারধরের ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়। গোলাম সারোয়ার মনোহরগঞ্জ উপজেলার ভাউপুর গ্রামের মৃত শামসুল হকের ছেলে, তিনি সরশপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান। এই ঘটনায় গোলাম সারোয়ার কুমিল্লা সিনিয়র নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ মনির হোসাইন এর নিকট লিখিত একটি অভিযোগ দায়ের করলে, ঘটনাটি জেনে তদন্তে নামে পুলিশ শুরু করেন পুলিশ, তদন্তে উঠে আসে অভিনব তথ্য। তাকে মারধরের ভিডিওটি ফেসবুকেও ভাইরাল করা হয়।

পুলিশ সুপার আরো জানান, জিজ্ঞাসাবাদে আটককৃতরা ঘটনার সাথে পরিকল্পিতভাবে জড়িত থাকার অভিযোগ স্বীকার করেছেন। ঘটনার মূল হোতা গোলাম সারোয়ার সহ অন্যান্যদেরকে আটকের চেষ্টা চালানো হচ্ছে বলেও সংবাদ সম্মেলনে জানা যায়। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার খন্দকার আশফাকুজ্জামান, সদর সার্কেল মোঃ কামরান হোসেন,জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রাজেস বড়ুয়াসহ অন্যরা।


আরো পড়ুন