পাহাড় ধসে-নারী ও শিশুর মৃত্যুর পর – চলছে উচ্ছেদ অভিযান।

0
40

মরিয়ম খানম:- পার্বত্য চট্টগ্রামের রাঙ্গামাটিতে পাহাড় ধসে নারী ও তিন বছরের এক শিশুর মৃত্যু হয় গতকাল (সোমবার)। এখন চট্টগ্রাম নগরে সে ধরনের যে কোনো দুর্ঘটনা ঠেকাতে পাহাড়ে ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থানে বসবাসকারীদের উচ্ছেদে অভিযান চালাচ্ছে জেলা প্রশাসন। আজ মঙ্গলবার (৯ জুলাই) বায়েজিদ বোস্তামী থানার টাংকির পাহাড় থেকে ১৪ পরিবারকে সরিয়ে দেয়া হয়েছে।

জেলা প্রশাসনের কাট্টলী সার্কেলের সহকারী কমিশনার তৌহিদুল ইসলাম বলেন, বায়েজিদ বোস্তামী থানার টাংকির পাহাড় থেকে উচ্ছেদ করা হয়েছে ১৪ পরিবারের সবাইকে। তারা সেখানে ব্যক্তিগত মালিকানাধীন জায়গায় বসবাস করছিলেন। প্রশাসনের পক্ষ থেকে ৮টি আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হয়েছে। বিভিন্ন পাহাড় থেকে উচ্ছেদ হওয়া পরিবারগুলোকে সেসব আশ্রয়কেন্দ্রে পাঠানো হচ্ছে। সেখানে খাবারের ব্যবস্থাও রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, নগরের ১৪ পাহাড়ে ৮৩৫টি ঝুঁকিপূর্ণ পরিবার চিহ্নিত করে উচ্ছেদ অভিযান চালানো হচ্ছে। প্রথম দফায় প্রায় ৩০০ পরিবারকে উচ্ছেদ করা হয়েছে। ১৭ জুলাইয়ের মধ্যে বাকি ঝুঁকিপূর্ণ পরিবারগুলোকে উচ্ছেদ করা হবে। বৃষ্টির কারণে যেকোনো মুহূর্তে পাহাড়ধসে বাসিন্দারা ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে। তাই আগে নোটিশ দেয়া হয়েছিল। কিন্তু বাসিন্দারা বাড়িঘর ছেড়ে না যাওয়ায় জেলা প্রশাসনকে উচ্ছেদ অভিযান চালাতে হচ্ছে,’- বলেন তিনি। পতেঙ্গা আবহাওয়া অফিস জানায়, সক্রিয় মৌসুমি বায়ুর দাপটে দেশজুড়ে বৃষ্টি হচ্ছে। চট্টগ্রামে সে দাপট আরও বেশি। একই কারণে দেশের সমুদ্র বন্দরগুলোকে ৩ নম্বর সতর্কতা সংকেত দেখিয়ে যেতে বলা হয়েছে। সাগর উত্তাল আছে। পরবর্তী ২০ ঘণ্টায় চট্টগ্রাম বিভাগের কোথাও কোথাও ভারী থেকে অতি ভারী বর্ষণ হতে পারে। অতি ভারী বৃষ্টির কারণে বিভাগের পাহাড়ি এলাকায় কোথাও কোথাও ভূমিধসের সম্ভাবনা রয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here