• শনিবার, ১৮ মে ২০২৪, ১১:১১ অপরাহ্ন

সাংবাদিক শামীমকে মিথ্যা অভিযোগে ফাঁসাতে গিয়ে অভিযোগকারীরা কারাগারে

/ ১৪৬ বার পঠিত
আপডেট: শুক্রবার, ১০ মার্চ, ২০২৩

নিজস্ব প্রতিবেদক:-

সংবাদদাতা, চাটখিল (নোয়াখালী): দৈনিক আজকের দর্পণ পত্রিকার নোয়াখালীর চাটখিল উপজেলা প্রতিনিধি সাংবাদিক শামছুদ্দিন (শামীম) কে মিথ্যা অভিযোগে ফাঁসাতে গিয়ে অভিযোগকারীরা কারাগারে। সোমবার সন্ধ্যায় জৈনক ব্যক্তির অভিযোগের ভিত্তিতে ঢাকা বিমানবন্দর থেকে পুলিশ হাজী শামীম কে আটক করে। পরে ওয়ারী থানা পুলিশের জিজ্ঞাসাবাদে হাজী শামীমের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ প্রাথমিকভাবে মিথ্যা প্রমানিত হয়।

এরপর পুলিশ রাত ১১টায় হাজী শামীম কে ছেড়ে দেয়। পরে তার ভাইয়ের অভিযোগের ভিত্তিতে পুলিশ দুই জনকে গ্রেফতার করে মঙ্গলবার দুপুরে আদালতে সোপর্দ করে। গ্রেফতারকৃতরা হচ্ছে সাউথ হ্যাভেন লিংঙ্কারস এর মালিক মো: বশির হোসেন কানন (৪৬) ও তার সহযোগী মো: মামুন (৩৭)। আদালত তাদের কারাগারে প্রেরণ করেছে।

ঢাকার ওয়ারী থানায় দায়ের হওয়া অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, সাউথ হ্যাভেন লিংঙ্কারস এর মালিক মো: বশির হোসেন কানন তার সহযোগী মো: মামুন ও কম্পিউটার অপারেটর সাইফুল ইসলাম যোগসাজশে হাজী শামীমের স্বাক্ষর জাল করে মিথ্যা মামলায় ফাঁসানোর অপচেষ্টায় লিপ্ত হয়। উল্লেখ হাজী শামীমের আমেরিকার ভিসা ফাইল প্রসেসিং করার জন্য প্রতারক বশিরের প্রতিষ্ঠান সাউথ হ্যাভেন লিংঙ্কারস কে দায়িত্ব দেওয়া হয়।

এতে সাউথ হ্যাভেন লিংঙ্কারস এর মালিক চাটখিল উপজেলার ভাওর গ্রামের মৃত. হোসেন আহমেদ এর ছেলে মো: বশির হোসেন কানন গ্রাহক হাজী শামীমের ইমেইল এ্যাড্রেস ব্যবহার না করে নিজের ইমেইল এ্যাড্রেস ব্যবহার করে। পরবর্তীতে হাজী শামীমের ভিসা অনুমোদন হলে বশির ১২লাখ টাকা দাবি করে। হাজী শামীম তার দাবিকৃত টাকা দিতে অস্বীকৃতি জানালে বশির হাজী শামীমের স্বাক্ষর জাল করে মিথ্যা মামলায় ফাঁসানো চেষ্টায় শামীমকে পুলিশ দিয়ে আটক করে। হাজী শামীম জানান, আদালতে অভিযোগকারী প্রতারক বশিরের অভিযোগ খারিজ করেন এবং হাজী শামীমের অভিযোগ আমলে নিয়ে মামলা হিসেবে রেকর্ড করতে ওয়ারী থানা পুলিশ কে নিদের্শ দিয়েছে।


আরো পড়ুন