• বুধবার, ০৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৭:০১ পূর্বাহ্ন

ফুটবলার ছিনতাই!

/ ২২ বার পঠিত
আপডেট: বুধবার, ২৫ জানুয়ারি, ২০২৩

এবারের জানুয়ারির দলবদলের সবচেয়ে পাগলাটে গল্প সম্ভবত আরনাট ডাঞ্জুমা গ্রোয়েনেভেল্ড দখল করে নিয়েছেন। লা লিগায় ভিয়ারিয়ালের হয়ে নাম্বার নাইন পজিশন সামলানো এই ডাচ স্ট্রাইকার এক রাতের মধ্যে নিজের দল বদল করে ফেলেছেন।

গত সপ্তাহের শনিবার (২১ জানুয়ারি) ভিয়ারিয়াল থেকে প্রিমিয়ার লিগের দল এভারটনে যোগ প্রায় দিয়েই ফেলেছিলেন ডাঞ্জুমা। ক্লাবটির হয়ে মিডিয়া সেশন এবং মেডিকেল টেস্টও করে ফেলেছিলেন এই ডাচ স্ট্রাইকার। কিন্তু আচমকাই এভারটনের সঙ্গে চুক্তি পেপারে সই না করে রাতারাতি অন্য ক্লাব টটেনহ্যামে যোগ দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেন ডাঞ্জুমা।

ফলে এভারটন প্রায় সব নিশ্চিত করেও প্রতিদ্বন্দ্বী ক্লাব টটেনহ্যামের কাছে হার মানতে বাধ্য হন। এভারটন থেকে প্রতিদ্বন্দ্বী ক্লাব টটেনহ্যাম এভাবে খেলোয়াড় নিয়ে যাওয়াটাকে ইংলিশ মিডিয়া ছিনতাই বলেই আখ্যায়িত করেছেন। দলবদলের নির্ভরযোগ্য খবর দেওয়া বিখ্যাত সাংবাদিক ফ্যাব্রিজিও রোমানোও এটাকে ছিনতাই বলেই ব্যাখ্যা করেছেন।

এক পোস্টে রোমানো ডাঞ্জুমার দলবদলকে ছিনতাইয়ের সঙ্গে আখ্যা দিয়ে লেখেন, ‘এবারের জানুয়ারির দলবদলে যোগ হয়েছে পাগলাটে এক গল্প। ডাঞ্জুমা এখন টটেনহ্যাম হটস্পারসের।

গত শনিবারও ডাঞ্জুমা এভারটনের সঙ্গে প্রায় চুক্তি সম্পন্ন করে ফেলেছিলেন। ক্লাবটির হয়ে মিডিয়া এবং মেডিকেল টেস্টও করে ফেলেছিলেন। কেবল চুক্তিতে স্বাক্ষর করা বাকি ছিল।

আচমকা ডাঞ্জুমাকে দলে ভেড়ানোর দলে যোগ দেয় ইংলিশ ক্লাব টটেনহ্যাম হটস্পার। তারা ধারে ডাঞ্জুমাকে দলে ভেড়ানোর জন্য ভিয়ারিয়ালকে প্রস্তাব দেয়। এমনকি মৌসুমের বাকি সময়ের পুরো স্যালারি দেওয়ার প্রস্তাবও দেয় স্পারসরা।

এছাড়াও মৌসুম শেষে ডাঞ্জুমাকে কিনে নেওয়ারও একটি শর্ত রাখে অ্যান্তোনিও কন্তের দল। ফলে মেডিকেল এবং মিডিয়া সেশন পার করেও ডাঞ্জুমা স্পারসের প্রস্তাব গ্রহণ করে।

এরপরই এই ডাচ স্ট্রাইকার এভারটন থেকে লন্ডনে টটেনহ্যামের দিকে রওয়ানা দেন মেডিকেল টেস্ট করানোর জন্য। ইতোমধ্যে মেডিকেল টেস্টও করেন স্পারসদের হয়ে। এখন কেবল চুক্তিতে সই করাই বাকি।’

ডাঞ্জুমা লা লিগায় ভিয়ারিয়ালে খেলছেন ২০২১ সাল থেকে। যেখানে ৩৩ ম্যাচ থেকে ১২ গোল করেছেন এই স্ট্রাইকার। এছাড়াও ২০১৮ সাল থেকে জাতীয় দলের জার্সিতে খেলেছেন ৬ ম্যাচ। যেখানে ২ বার গোলের আনন্দে ভেসেছেন এই ডাচ তারকা।


আরো পড়ুন