• রবিবার, ০৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ১০:৩৩ অপরাহ্ন

বাড্ডায় দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে শিক্ষার্থী খুন

/ ৩০ বার পঠিত
আপডেট: সোমবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০২২

অনলাইন ডেস্ক:
রাজধানীর বাড্ডায় দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে আশফাকুর রহমান চৌধুরী সাতিল (২০) নামে এক শিক্ষার্থী খুন হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন সোয়াইব হোসেন (১৮) ও রুপম দত্ত (১৮) নামে আরও দুই শিক্ষার্থী। স্বজনের অভিযোগ ঘাতক বন্ধুরা ফোন করে ডেকে নিয়ে সাতিলকে হত্যা করেছে।

রোববার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে ডিআইটি প্রজেক্ট ১৩ নম্বর রোডে এ ঘটনা ঘটে।

মুমূর্ষু অবস্থায় তাদের ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক সাড়ে ৯টার দিকে সাতিলকে মৃত ঘোষণা করেন।
সাতিলকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া সায়েম সিকদার জানান, সন্ধ্যার পর মানুষের চিৎকার শুনে তারা ১৩ নম্বর রোডে গিয়ে দেখেন সাতিল এবং সোয়াইব রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন। তখন সেখান থেকে দ্রুত তাদের স্থানীয় এশিয়ান হাসপাতালে নিয়ে যান। পরে ঢাকা মেডিকেলে নেওয়া হয়।

হাসপাতালে আহত রুপম জানান, দুই দিন আগে ১৩ নম্বর রোডে রকি তাকে ডেকে শাসান যে, তার সঙ্গে যেন তুই সম্বোধন করে কথা না বলেন। এরপর রোববার সন্ধ্যায় রুপমকে একা পেয়ে মারধর করে রকি। তা দেখে দৌড়ে গিয়ে সোয়াইব ও সাতিল তাকে রকির হাত থেকে বাঁচানোর চেষ্টা করেন। এ সময় তাদের মধ্যে মারামারি হয়। এক পর্যায়ে রকি তিনজনকে ছুরিকাঘাত করে দৌড়ে পালিয়ে যান।

ঢামেক হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (ইন্সপেক্টর) মো. বাচ্চু মিয়া জানান, নিহতের বাঁ পায়ে ছুরিকাঘাত করা হয়েছে। মরদেহ মর্গে রাখা হয়েছে। সোয়াইবের বুকসহ শরীরের কয়েক জায়গায় ও রুপমের পিঠে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন রয়েছে। জরুরি বিভাগে তাদের চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

সাতিলের বাবা গোলাম মনিরুজ্জামান চৌধুরী জানান, তাদের বাসা ডিআইটি প্রজেক্টের ১১ নম্বর রোডে। গ্রামের বাড়ি ঢাকার দোহারে। বাংলাদেশ নৌবাহিনী কলেজ থেকে এবার উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা দিচ্ছিলেন সাতিল।


আরো পড়ুন