• সোমবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২২, ০৭:৫০ পূর্বাহ্ন




রুটি-রুজির সন্ধানে ঢাকায় গিয়ে প্রাণ গেল তরুণীর

/ ৩৭ বার পঠিত
আপডেট: মঙ্গলবার, ১৫ নভেম্বর, ২০২২
দুর্ঘটনায় নিহত হন রশিদা খানম

নড়াইল প্রতিনিধি:
নড়াইল থেকে রুটি-রুজির সন্ধানে ঢাকায় গিয়ে প্রাণ গেল তরুণীর। একটু ভালোভাবে বাঁচার তাগিদেই ঢাকায় গমন। রুটি-রুজির সন্ধানে রাজধানীতে গিয়ে বেসরকারি একটি ব্যাংকের নিয়োগ পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হন। কিছু দিনের মধ্যেই চাকরিতে যোগদানের কথা ছিল; কিন্তু ব্যাংকার হওয়ার সেই স্বপ্ন বাস্তবে রূপ নেওয়ার আগেই না ফেরার দেশে পাড়ি জমান রশিদা খানম (২৫)। নড়াইল প্রতিনিধি জানান, রোববার রাতে রাজধানীর মালিবাগ এলাকায় দুর্ঘটনায় নিহত হন রশিদা খানম। তিনি নড়াইল সদর উপজেলার ভদ্রবিলা ইউনিয়নের সরকেলডাঙ্গা গ্রামের আমজাদ বিশ্বাসের মেয়ে।


সোমবার সন্ধ্যায় তার লাশ এলাকায় পৌঁছলে হৃদয়বিদারক ঘটনার সৃষ্টি হয়। এদিন সন্ধ্যা ৬টার দিকে পারিবারিক কবরস্থানে তার লাশ দাফন করা হয়।


নিহতের ভাই নুর ইসলাম বিশ্বাস জানান, রশিদা খানম সরকারি ভিক্টোরিয়া কলেজ থেকে অর্থনীতি বিভাগ থেকে স্নাতকোত্তর ডিগ্রি অর্জন করে সপ্তাহখানেক আগে চাকরির খোঁজে ঢাকায় যান। এরপর একটি বেসরকারি ব্যাংকে চাকরির পরীক্ষা দিয়ে উত্তীর্ণ হন। কিন্তু রোববার সন্ধ্যায় রাজধানী ঢাকার মালিবাগ এলাকায় রেললাইনের পাশে বসে বন্ধুরাসহ ল্যাপটপে কিছু একটা করার সময় দ্রুতগামী ট্রেনের ধাক্কায় মারাত্মক আহত হন। তার বন্ধুরা রেললাইন থেকে দ্রুত সরতে পারলেও চলন্ত ট্রেনের ধাক্কায় সে ছিটকে পড়ে।


তিনি বলেন, এরপর বন্ধুরা তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। তার বোন অত্যন্ত মেধাবী শিক্ষার্থী ছিল। বোনকে উচ্চশিক্ষায় শিক্ষিত করার জন্য সবরকম ত্যাগ স্বীকার করেছেন তাদের বাবা-মা। এ ঘটনার পর সব ওলটপালট হয়ে গেছে। আমাদের সব স্বপ্ন ভেঙে চুরমার হয়ে গেছে বলে মন্তব্য করেন তিনি। উজ্জ্বল রায়, জেলা প্রতিনিধি নড়াইল থেকে।





আরো পড়ুন