• রবিবার, ০২ অক্টোবর ২০২২, ১০:১২ পূর্বাহ্ন
171764904_843966756543169_3638091190458102178_n

সাংবাদিক অনু’র মুক্তির দাবিতে নোয়াখালীতে মানববন্ধন

মোহাম্মদ জুবাইর, নিজস্ব প্রতিবেদক / ৬১ বার পঠিত
আপডেট: বৃহস্পতিবার, ১১ আগস্ট, ২০২২
মানববন্ধন_SONGBAD_TV

বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটি’র কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব, লালমনিরহাট রিপোর্টার্স ইউনিটির সাধারণ সম্পাদক নুর আলমগীর অনুর মুক্তির দাবিতে মানববন্ধন হয়েছে নোয়াখালী জেলা প্রশাস ক কার্যালয়ের সামনে।

১১ই আগষ্ট বৃহস্পতিবার বেলা ১২ টায় বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটি কেন্দ্রীয় কমিটি ও নোয়াখালী জেলায় কর্মরত সাংবাদিক বৃন্দের যৌথ উদ্যোগ নোয়াখালী জেলা পরিষদ চত্বরে বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক কেন্দ্রীয় যুগ্ন সম্পাদক রিপন মজুমদারের সভাপতিত্বে ও কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য শাহাদাত হোসেন স্বপনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত হয়।

এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নোয়াখালী জেলা সাংবাদিক ইউনিটির সভাপতি ও এন টিভির স্টাফ রিপোর্টার মোঃ মাসুদ পারভেজ, হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটির কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব আনিছুর রহমান ফরহাদ, কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক (চট্রগ্রাম বিভাগ) মোঃ ইসমাইল ইমন, প্রফেসর আবু নাছের, সভাপতি বি এম এস এফ, সেনবাগ উপজেলা, গাজী রুবেল ব্যুরোচীপ দৈনিক গনমুক্তি, মোঃ ফারুক, বাংলা টিভি নোয়াখালী প্রতিনিধি,শিপন মজুমদার,মেট্রো বাংলা টিভি, নোয়াখালী প্রতিনিধি, জোবায়ের হাসান সজল, ফটো সাংবাদিক আজকের বসুন্ধরা ও মামুন চৌধুরী বিভাগীয় প্রতিনিধি সাউথ এশিয়ান টাইমস।
বক্তারা বলেন সাংবাদিকরা জাতির বিবেক জাতির দর্পণ রাষ্ট্রের চতুর্থ স্তম্ভ, সাংবাদিক রাষ্ট্রের উন্নয়নের অগ্রযাত্রায় সারথী হয়ে দুর্নীতিবাজদের অনিয়ম, দুর্নীতি তুলে ধরেন।

সাংবাদিকরা প্রশাসনের শত্রু নয় বরং ভালো কাজের সহায়ক, অথচ লালমনিরহাটের কালীগঞ্জ থানার ওসি গত ৪টা আগষ্ট বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক সোসাইটির কেন্দ্রীয় যুগ্ম মহাসচিব সাংবাদিক নুর আলমগীর অনুকে চায়ের দাওয়াত দিয়ে থানায় ডেকে নিয়ে অস্ত্র মামলা দিয়ে গ্রেফতার করে যে ন্যাক্কারজনক ঘটনার জন্ম দিয়েছেন তা সত্যিই দুঃখজনক।

আমরা অনতি বিলম্বে সাংবাদিক অনুর মামলা প্রত্যাহার পূর্বক মুক্তির দাবি জানাচ্ছি সেই সাথে মিথ্যা মামলা দিয়ে হয়রানিকরা সেই ওসি এ টি এম গোলাম রসুলের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সরকার, তথ্য মন্ত্রণালয়ের ও সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের উচ্চ পর্যায়ের কর্মকর্তাদের সুদৃষ্টি কামনা করছি। এবং ডিজিটাল নিরাপত্তা আইন সংশোধন পূর্বক সাংবাদিক সুরক্ষায় সময়োপযোগী আইন বাস্তবায়ন ও সারা দেশে সাংবাদিক নির্যাতন হয়রানি বন্ধ সহ হত্যার শিকার সাংবাদিকদের হত্যাকারীদের সুষ্ঠু তদন্তের মাধ্যমে খুঁজে বের করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির ব্যবস্থা করা হোক।


আরো পড়ুন