• বৃহস্পতিবার, ০৬ অক্টোবর ২০২২, ০৬:৫০ পূর্বাহ্ন
171764904_843966756543169_3638091190458102178_n

ঢাকায় বৈদ্যুতিক তার, মেয়াদ উত্তীর্ণ খাদ্যদ্রব্য, অবৈধ রাসায়নিক দ্রব্য প্রসাধনী র‌্যাবের অভিযান 

জুয়েল খন্দকার নিজস্ব প্রতিবেদক / ৫৯ বার পঠিত
আপডেট: বুধবার, ২৭ জুলাই, ২০২২
র‍্যাব ঢাকা

ঢাকার বংশাল ও দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ এলাকায় নকল বৈদ্যুতিক তার, মেয়াদ উত্তীর্ণ খাদ্যদ্রব্য, অবৈধ রাসায়নিক দ্রব্য এবং নকল প্রসাধনী সামগ্রী উৎপাদন, মজুদ ও বিক্রি করায় র‌্যাবের ভ্রাম্যমাণ আদালতে ৫০ লক্ষ টাকা জরিমানা।

এরই ধারাবাহিকতায় গতকাল ২৬ জুলাই ২০২২ খ্রিঃ তারিখ র‌্যাব সদর দপ্তর এর নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জনাব মোঃ মাজহারুল ইসলাম ও র‌্যাব-১০ এর সমন্বয়ে একটি আভিযানিক দল ঢাকার বংশাল ও দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জ এলাকায় ভ্রাম্যমাণ আদালত কার্যক্রম সম্পন্ন করে।

এসময় বিএসটিআই এর প্রতিনিধির উপস্থিতিতে ভ্রাম্যমাণ আদালত উল্লিখিত এলাকায় নকল বৈদ্যুতিক তার, মেয়াদ উত্তীর্ণ খাদ্যদ্রব্য, অবৈধ রাসায়নিক দ্রব্য এবং নকল প্রসাধনী সামগ্রী উৎপাদন, মজুদ ও বিক্রি করার অপরাধে বিডি বিউটি এন্ড গø্যামার্স, বংশালকে নগদ- ২০,০০,০০০/- (বিশ লক্ষ) টাকা, ইয়াসিন কপার ড্রোইং, বংশালকে নগদ- ২,০০,০০০/- (দুই লক্ষ) টাকা, অনিক এন্টারপ্রাইজ, বংশালকে নগদ- ৪,০০,০০০/- (চার লক্ষ) টাকা, হোসাইন ম্যানুফ্যাকচারিং কোম্পানী, বংশালকে নগদ- ৩,০০,০০০/- (তিন লক্ষ) টাকা, আল-আমিন ম্যানুফ্যাকচারিং, বংশালকে নগদ- ৩,০০,০০০/- (তিন লক্ষ) টাকা, গ্রীন ড্রাম রিসাইকেল, দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জকে নগদ- ১,০০,০০০/- (এক লক্ষ) টাকা, প্রিমিয়াম ইলেকট্রো ভিশন, দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জকে নগদ- ৫,০০,০০০/- (পাঁচ লক্ষ) টাকা, এ এস ইলেকট্রিক, দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জকে নগদ- ২,০০,০০০/- (দুই লক্ষ) টাকা এবং আর সি এল, দক্ষিণ কেরাণীগঞ্জকে নগদ- ১০,০০,০০০/- (দশ লক্ষ) টাকা করে ০৯ টি প্রতিষ্ঠানকে সর্বমোট নগদ- ৫০,০০,০০০ (পঞ্চাশ লক্ষ) টাকা জরিমানা প্রদান করেন। এছাড়া বিজ্ঞ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নির্দেশে উক্ত ভ্রাম্যমাণ আদালত কর্তৃক আনুমানিক ২,০০,০০০/- (দুই লক্ষ) টাকা মূল্যের নকল বৈদ্যুতিক তার, মেয়াদ উত্তীর্ণ খাদ্যদ্রব্য, অবৈধ রাসায়নিক দ্রব্য এবং নকল প্রসাধনী সামগ্রী জব্দ ও ধ্বংস করা হয়।

প্রাথমিক অনুসন্ধানে জানা যায় যে, বেশ কিছুদিন যাবৎ এই অসাধু ব্যবসায়ীরা নকল বৈদ্যুতিক তার, মেয়াদ উত্তীর্ণ খাদ্যদ্রব্য, অবৈধ রাসায়নিক দ্রব্য এবং নকল প্রসাধনী সামগ্রী উৎপাদন, মজুদ ও বিক্রি করে আসছিল।


আরো পড়ুন