• রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪, ১১:৪২ পূর্বাহ্ন

বানারীপাড়ায় হতদরিদ্র ফেরিওয়ালাকে পিটিয়ে জখম!

/ ৩২৩ বার পঠিত
আপডেট: শনিবার, ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ
বানারীপাড়ায় ঘুমে ব্যঘাত ঘটার ঠুনকো অজুহাতে আবুল কালাম (৩৭) নামের এক দরিদ্র ভাঙারী ফেরীওয়ালাকে নির্মমভাবে পিটিয়ে আহত করা হয়েছে। এ বিষয়ে বানারীপাড়া থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, বানারীপাড়া পৌর শহরের ২ নং ওয়ার্ডে সাবেক ইউপি সদস্য ও বন্দর বাজারের সততা ফার্নিচারের সত্ত্বাধিকারী শংকর প্রসাদ চন্দের বাড়িতে শুক্রবার সকাল পৌনে ১০টার দিকে ভাঙারী মালামাল ক্রয়ের জন্য যান আবুল কালাম নামের এক ফেরিওয়ালা। ওই বাড়ির বাবুল কর্মকারের বাসা থেকে পুরাতন মালামাল ক্রয় শেষে ফেরিওয়ালা আবুল কালাম একই বাড়ির শংকর প্রসাদ চন্দের ঘরের পাশে গিয়ে তাদের পুরাতন মালপত্র আছে কিনা তা ডাক দিয়ে জানতে চাইলে শংকর প্রসাদ চন্দের ছেলে পার্থ প্রতিম চন্দের ঘুমে ব্যঘাত ঘটে। এতে সে ক্ষিপ্ত হয়ে ফেরীওয়ালা আবুল কালামকে প্রথমে লোহার রড ও পরে চুলা থেকে জলন্ত লাকড়ি এনে নির্মমভাবে পিটিয়ে জখম করে।এতে তার মাথা ফেটে যাওয়া ও শরীরের বিভিন্ন স্থানে পুড়ে যাওয়া সহ একাধিক ক্ষতের সৃষ্টি হয়েছে। স্থানীয় লোকজন তাকে গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন।

এ ব্যপারে রাতেই বানারীপাড়া থানায় পার্থ চন্দের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।
এ প্রসঙ্গে ওসি খলিলুর রহমান জানান, আসামীকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

প্রসঙ্গত, গত কিছুদিন পূর্বে পার্থ চন্দ উপজেলার বাইশারী ইউনিয়নের উত্তর নাজিরপুর গ্রামের নয়ন নামের এক যুবককে বেদম মারধর করে মোবাইল ফোন নিয়ে যায়। এ নিয়ে থানায় অভিযোগ করা হলে পরে থানায় বসে শালিস বৈঠকে পার্থকে তার বাবা মারধর করে বিচার করেন এবং জরিমানা করা হয়।

উল্লেখ্য মাদকাসক্ত পার্থ প্রসাদ চন্দ বরিশালের একটি আ লিক পত্রিকার স্থানীয় প্রতিনিধির কার্ড ব্যবহার একের পর এক অপরাধ কর্মকান্ড চালিয়ে যাচ্ছে।


আরো পড়ুন