• শনিবার, ১৫ মে ২০২১, ০৫:৪৩ অপরাহ্ন

লক্ষ্মীপুরে প্রবাসীর স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা, অভিযুক্ত গণপিটুনিতে নিহত

অনলাইন ডেস্ক / ৩৬ Time View
Update : রবিবার, ১৮ এপ্রিল, ২০২১

লক্ষ্মীপুরের রামগঞ্জে প্রবাসীর স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যার পর অভিযুক্ত যুবক গণপিটুনিতে নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। আজ রোববার (১৮ এপ্রিল) দুপুরে নিহতদের মরদেহ সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছে পুলিশ।

এর আগে সকাল ৯ টার দিকে উপজেলার ভাট্টা ইউনিয়নের জাফর নগর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ বলছে পরকীয়া প্রেমের সম্পর্কের জের ধরে নিহত নারীর কথিত প্রেমিক রাসেল তাকে ছুরিকাঘাতে হত্যা করে। এরপর বিক্ষুদ্ধ জনতার গণপিটুনি দিলে অভিযুক্ত রাসেল মারা যায়।

নিহত নারী ওই গ্রামের কাতার প্রবাসী ছপি উল্ল্যাহর স্ত্রী ও দুই সন্তানের জননী নাসরিন সুলতানা, অপর নিহত যুবক রাসেল একই গ্রামের সিদ্দিক উল্লাহর ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ জানায়, দীর্ঘদিন ধরে স্বামীর কাতার থাকার সুবাধে স্থানীয় ছফি উল্লাহর স্ত্রী নাসরিনের সঙ্গে পাশবর্তী বাড়ির সিদ্দিক উল্লাহর ছেলে রাসেলের সঙ্গে পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। এক পর্যায়ে ওই সম্পর্ক বিচ্ছিন্ন করে নারী। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে ঘটনার দিন নাসরিনের স্বামীর বাড়িতে হামলা চালায় রাসেল।

এ সময় তাকে এলোপাতাড়ি ছুরিকাঘাতসহ পিটিয়ে গুরুত্বর আহত করে রাসেল। পরে পরিবারের সদস্যদের চিৎকারে আশে পাশের লোকজন এসে তাকে (রাসেল) স্থানীয় জনতা গণপিটুনি দিয়ে গুরুত্বর আহত করেন। পরে তাদের রামগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক দু’জনকেই মৃত ঘোষণা করেন।

নিহত নারীর ছেলে নাইমুর জানান, ওই ছেলেটা আসছে বলে ঘুম থেকে জায়গায় মা। সাথে আনোয়ার মোল্লা থাকায় ঘরের দরজা খুলে দেয়া হয়। এ সময় এলোপাতাড়ি ছুরিকাঘাত ও মাথায় আঘাত করে মাকে হত্যা করা হয়।

এদিকে খবর পেয়ে দুপুরে ঘটনাস্থল এলাকা পরিদর্শন করেন পুলিশ সুপার ও থানার ওসিসহ পুলিশের বিশেষ দল।

এ সময় পুলিশ সুপার ড. এ এইচ এম কামরুজ্জামান জানান, পরকীয়া প্রেমের সম্পর্কের জের ধরে এক নারীকে হত্যার পর বিক্ষুব্ধ জনতার গণপিটুনিতে অভিযুক্ত যুবকও নিহত হয়। নিহতদের মরদেহ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category